আইসিসির বর্ষসেরা একাদশে নেই সাকিব

খেলা বার্তা

গেল বছর স্বপ্নীল এক বিশ্বকাপ কাটিয়েছেন সাকিব আল হাসান। ব্যাট-বল হাতে আগুনে ফর্মে ছিলেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার। একাই টানেন বাংলাদেশ দলকে। ফলে ক্রিকেটের বাইবেলখ্যাত উইজডেনসহ ২০১৯ সালে বিভিন্ন জনপ্রিয় ওয়েবসাইটের বর্ষসেরা ওয়ানডে দলে স্থান করে নেন তিনি।

কিন্তু উল্টো পথে হাঁটল বিশ্ব ক্রিকেটের নীতিনির্ধারণী সংস্থা আইসিসি। নিজেদের নির্বাচিত বর্ষসেরা ওয়ানডে একাদশে সাকিব আল হাসানকে ঠাঁই দেননি তারা। শুধু তাই নয়, সেই দলে কোনো বাংলাদেশি ক্রিকেটারও নেই। দলটির নেতৃত্বে রয়েছেন ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি। তিনিসহ দেশটির সর্বোচ্চ চার ক্রিকেটার রয়েছেন এই একাদশে। এ ছাড়া বিশ্বকাপের দুই ফাইনালিস্ট ইংল্যান্ড ও নিউজিল্যান্ড থেকে আছেন দুজন করে।

অথচ বিশ্বকাপে দুর্দান্ত খেলা সাকিব নেই। ক্রিকেটের বৈশ্বিক টুর্নামেন্টে আট ম্যাচে ৫ হাফসেঞ্চুরি ও ২ সেঞ্চুরিতে প্রায় ৮৭ গড়ে ৬০৬ রান করেন তিনি। সব মিলিয়ে বিশ্বকাপের তৃতীয় সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক ছিলেন টাইগার ক্রিকেটার। পাশাপাশি আইসিসির এই ইভেন্টে ১১ উইকেট নেন বাঁহাতি স্পিনার।

জুয়াড়ির প্রস্তাব গোপন রাখায় গেল বছরের ২৯ অক্টোবর সাকিবকে সব ধরনের ক্রিকেটে দুই বছর নিষিদ্ধ করে আইসিসি। অবশ্য এক বছর নিষেধাজ্ঞা স্থগিত করা হয়েছে। তা সত্ত্বেও বছর শেষে ১১ ম্যাচে ৯৩.২৫ গড়ে ৭৪৬ রান তার। পাশাপাশি ঝুলিতে রয়েছে ১৩ উইকেট।

আইসিসির বর্ষসেরা ওয়ানডে একাদশে একমাত্র অলরাউন্ডার হিসেবে রয়েছেন ইংল্যান্ডের বেন স্টোকস। বর্ষসেরা ক্রিকেটারেরও পুরস্কার জিতেছেন তিনি। উইকেটরক্ষকের দায়িত্ব পেয়েছেন তারই জাতীয় দলের সতীর্থ জস বাটলার।

একই সঙ্গে বুধবার বর্ষসেরা টেস্ট একাদশও ঘোষণা করেছে আইসিসি। সেখানে নেই কোনো বাংলাদেশি ক্রিকেটার। সর্বোচ্চ ৫ জন রয়েছেন অস্ট্রেলিয়া থেকে। এ ছাড়া নিউজিল্যান্ড থেকে তিনজন এবং ইংল্যান্ড থেকে দুজন খেলোয়াড় এ একাদশে জায়গা পেয়েছেন। এ দলের দলনায়কের ভূমিকায় আছেন কোহলি। বর্ষসেরা ওয়ানডে ও টেস্ট- উভয় একাদশেই রয়েছেন মাত্র তিন ক্রিকেটার। তারা হলেন কোহলি, স্টোকস ও অস্ট্রেলিয়ার মিচেল স্টার্ক।

আইসিসি বর্ষসেরা ওয়ানডে একাদশ

রোহিত শর্মা (ভারত), শাই হোপ (ওয়েস্ট ইন্ডিজ), বিরাট কোহলি (ভারত), বাবর আজম (পাকিস্তান), কেন উইলিয়ামসন (নিউজিল্যান্ড), বেন স্টোকস (ইংল্যান্ড), জস বাটলার (উইকেটরক্ষক, ইংল্যান্ড), মিচেল স্টার্ক (অস্ট্রেলিয়া), ট্রেন্ট বোল্ট (নিউজিল্যান্ড), মোহাম্মদ শামি (ভারত) ও কুলদ্বীপ যাদব (ভারত)।

আইসিসি বর্ষসেরা টেস্ট একাদশ

মায়াঙ্ক আগারওয়াল (ভারত), টম লাথাম (নিউজিল্যান্ড), মার্নাস লাবুশানে (অস্ট্রেলিয়া), বিরাট কোহলি (অধিনায়ক, ভারত), স্টিভেন স্মিথ (অস্ট্রেলিয়া), বেন স্টোকস (ইংল্যান্ড), বিজে ওয়াটলিং (উইকেটরক্ষক, নিউজিল্যান্ড), প্যাট কামিনস (অস্ট্রেলিয়া), মিচেল স্টার্ক (অস্ট্রেলিয়া), নেইল ওয়াগনার (নিউজিল্যান্ড) ও নাথান লায়ন (অস্ট্রেলিয়া)।

তথ্যসূত্র: আইসিসি ওয়েবসাইট।