অবশেষে ইরান ছাড়তে হল ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতকে

খেলা বার্তা

বিক্ষোভে অংশ নেয়াসহ নানান বিতর্কের পর অবশেষে নিজ দেশে ফিরে গেছেন ইরানে নিযুক্ত ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত রব ম্যাকায়ার।

ইরানের বিভিন্ন মহল থেকে তাকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে বহিষ্কারের দাবি জোরালো হওয়ার মধ্যেই তিনি তেহরান ত্যাগ করেছেন। খবর ইরনার।

ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত প্রটোকল মেনে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দিয়ে তেহরান ছেড়েছেন বলে ইরানের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থার খবরে বলা হয়েছে।

চলতি মাসের শুরুতে ভুলবশত ইরানি ক্ষেপণাস্ত্রে একটি ইউক্রেনের বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় বিক্ষোভে অংশ নেয়ার পর শনিবার তাকে গ্রেফতার করে পরে ছেড়ে দেয়া হয়।

এরমধ্যে ইরানের আইনের প্রতি সম্মান দেখাতে পারেননি বলে অভিযোগ করে তেহরানে ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত রব ম্যাকিয়ারের কুশপুত্তলিকা দাহ করেছেন ইরানি বিক্ষোভকারীরা।

মঙ্গলবার তেহরান বিশ্ববিদ্যালয়ে ওই কূটনীতিকের অবয়বে একটি কার্ডবোর্ড কেটে সেটি পুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। সঙ্গে বৃটিশ পতাকাও জ্বালিয়ে দেয়া হয়েছে।

ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতের ওই পদক্ষেপের পরিপ্রেক্ষিতে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, তেহরানের বিক্ষোভে ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতের উপস্থিতি ‘বেআইনি, অপেশাদার ও সন্দেহজনক’।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, ‘ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতের এই পদক্ষেপ ইরানের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে সুস্পষ্ট হস্তক্ষেপ এবং কূটনৈতিক রীতিনীতির পরিপন্থি। তার এ পদক্ষেপ যুক্তরাষ্ট্রের সর্বোচ্চ চাপ প্রয়োগের ব্যর্থ নীতির প্রতি ব্রিটিশ সরকারের সহযোগিতার অনুমান শক্তিশালী করে।’

এছাড়া রব ম্যাকেয়ারকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে তাকে বহিষ্কারের আহ্বান জানিয়েছিলেন ইরানি বিচার বিভাগের মুখপাত্র গোলাম হোসেইন ইসমাইলি।