‘এটা শুধু আমার জন্য না, সবার জন্য চ্যালেঞ্জিং’ -মোসাদ্দেক

খেলা বার্তা

আয়ারল্যান্ডে অনুষ্ঠিত ত্রিদেশীয় সিরিজ থেকেই লোয়ার মিডেল অর্ডারে ব্যাট করে দারুণ সফল মোসাদ্দেক হোসেন। ৭ নম্বরে ব্যাটিং করে বেশ কিছু কার্যকর ইনিংস খেললেও, ইনিংস বড় করতে ব্যর্থ হয়েছেন তিনি।

মোসাদ্দেক জানিয়েছেন ৭ নম্বরে ব্যাট করে বড় ইনিংস খেলা যেকোনো ব্যাটসম্যানের জন্যই চ্যালেঞ্জিং। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ম্যাচটি ছাড়া এখন পর্যন্ত সবগুলো ম্যাচই বাংলাদেশের একাদশে ছিলেন তিনি। প্রতিটি ম্যাচেই ব্যাট হাতে সাবলীল ছিলেন এই ডানহাতি ব্যাটসম্যান।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ২০ বলে ২৬, নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ২২ বলে ১১, ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১৬ বলে ২৬ এবং আফগানিস্তানের বিপক্ষে ২৪ বলে ৩৫ রানের ইনিংসগুলো ছিল সময় উপযোগী। ৭ নম্বরে ব্যাটিংয়ে নেমে দ্রুত রান তোলাই তাঁর লক্ষ্য থাকে বলে জানালেন মোসাদ্দেক।

‘এটা শুধু আমার জন্য না, সবার জন্য চ্যালেঞ্জিং, ৭ নম্বরে নেমে তখন বড় ইনিংস খেলা। তখন নিজের থেকে দলের রানটা বেশি গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠে। সবাই চেষ্টা করে এখানে এসে সবাই যেন দ্রুত রানটা তুলতে পারে। প্রিমিয়ার লিগ থেকেই এ চেষ্টা করে আসছি। এখনও সেই চেষ্টায় আছি।’

এই বিশ্ব আসরে বাংলাদেশি ক্রিকেটারদের মধ্যে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ব্যাটিং স্ট্রাইক রেট মোসাদ্দেকের। চলতি বিশ্বকাপে তাঁর স্ট্রাইক রেট ১১৯.৫১। তার চেয়ে বেশি স্ট্রাইক রেট আছে কেবল লিটন দাসের। তিনি ১২৬.২১ স্ট্রাইক রেটে রান করেছেন এবারের বিশ্বকাপে।

মোসাদ্দেকের সবসময় চিন্তা থাকে একশোর বেশি স্ট্রাইক রেটে খেলার। সেটা মাঠে অনেকটাই প্রমাণ করেছেন এই লোয়ার মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান। এছাড়া বল হাতে উইকেট তুলে নেয়ার দায়িত্ব থাকলেও ডট বল দেয়াকেই বেশি গুরুত্বপূর্ণ বলে মানছেন তিনি।

‘স্ট্রাইক রেট নিয়েই চিন্তা করছি। চিন্তায় থাকে যখনই ব্যাটিংয়ে যাবো তখন ১০০ এর বেশি স্ট্রাইক রেট নিয়ে ব্যাটিং করবো। বোলিংয়ের সময় আমার রোল হয়তো থাকে ৫-৬ ওভার। উইকেট থেকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ আসলে ডট বল করা। যেই পরিস্থিতিতে আমি যাচ্ছি চেষ্টা করছি ডট বল বেশি করে করার।’